ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিব ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • শনিবার   ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ||

  • ফাল্গুন ১৬ ১৪২৬

  • || ০৫ রজব ১৪৪১

১৪৭

ছোট হয়ে আসছে সেন্টমার্টিন চারপাশে ভাঙন

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৯ জুলাই ২০১৯  

দেশের একমাত্র প্রবালদ্বীপ সেন্টমার্টিন। প্রায় ২০০ বছর আগে থেকে বসতি শুরু হয় এ দ্বীপে। এর পর থেকে বিভিন্ন সময়ে ঘূর্ণিঝড়, জলোচ্ছ্বাসসহ ভয়াবহ নানা প্রাকৃতিক দুর্যোগ টেকনাফ উপকূলে আঘাত হানলেও কখনো মনোবল ভাঙেনি সেন্টমার্টিন দ্বীপবাসীর। কিন্তু সম্প্রতি এ দ্বীপে দুটি জলোচ্ছ্বাস আঘাত হানে এবং দ্বীপের চারপাশে ভয়াবহ ভাঙন দেখা দেয়। এর পর থেকে নতুন করে ভাবনায় পড়েছে দ্বীপের প্রায় নয় হাজার বাসিন্দা। ভাঙন অব্যাহত থাকায় ৮ দশমিক ৩ বর্গকিলোমিটার আয়তনের দ্বীপটি দিন দিন ছোট হয়ে আসছে। দেশের মানচিত্র থেকে দ্বীপটি হারিয়ে যাওয়ার আশঙ্কায় উদ্বিগ্ন দ্বীপবাসী।

স্থানীয়রা জানায়, ১৯৯১ সালের প্রলয়ঙ্করী ঘূর্ণিঝড়, ’৯৪ সালের জলোচ্ছ্বাসসহ কোনো প্রাকৃতিক দুর্যোগের সময় এ দ্বীপে পানি ওঠেনি। ভাঙনের সমস্যাও তেমন ছিল না। কিন্তু সাম্প্রতিক বছরগুলোয় পূর্ণিমার জোয়ারে সেন্টমার্টিনে জলোচ্ছ্বাস হতে থাকে, একই সঙ্গে দেখা দেয় চারদিকে ভাঙন। এরই মধ্যে দ্বীপের চারপাশে বিশাল অংশ পানিতে তলিয়ে যায়। ধসে যায় দ্বীপের আটটি বসতঘরসহ প্রায় ২১টি স্থাপনা। দ্বীপের উত্তর ও পশ্চিমাংশে অবস্থিত একমাত্র কবরস্থানটির ১৫০ ফুটেরও বেশি তলিয়ে গেছে সাগরে। এ দ্বীপের পরিবেশ, পর্যটন ও জীববৈচিত্র্য রক্ষায় টেকসই বেড়িবাঁধ নির্মাণের দাবিতে গত ১৫ জানুয়ারি টেকনাফ পৌরসভার একটি আবাসিক হোটেলের হলরুমে সেন্টমার্টিন ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহমদের উদ্যোগে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সেখানে ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহমদ বলেন, এ দ্বীপে মানুষের বসবাস শুরু হয় প্রায় ২০০ বছর আগে। দ্বীপে বসতি শুরুর পর এভাবে কোনোদিন এখানে পানি ওঠেনি। এ রকম ভয়াবহ ভাঙনও কোনো সময় দেখা যায়নি। জোয়ারের পানি আর সাগরের ঢেউয়ের কারণে দ্বীপের চারপাশেই ভাঙনের সৃষ্টি হয়েছে। বেশি ভাঙন ধরেছে উত্তর-পশ্চিমাংশে। এতে বিস্তীর্ণ কেয়াবন বিলীন হয়ে গেছে।

ইউপি চেয়ারম্যান অভিযোগ করেন, স্বেচ্ছায় দ্বীপবাসী বাঁধ নির্মাণ করতে চাইলেও স্থানীয় উপজেলা প্রশাসন বাধা দেয়। এ ব্যাপারে তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ কামনা করেন। জানা গেছে, বাংলাদেশ পরিবেশ সংরক্ষণ আইন, ১৯৯৫ (সংশোধিত ২০১০) অনুযায়ী, ১৯৯৯ সালে সেন্টমার্টিনকে প্রতিবেশগত সংকটাপন্ন এলাকা (ইসিএ) ঘোষণা করা হয়।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রবিউল হাসান বলেন, সেন্টমার্টিনে যেসব জায়গায় ভাঙন ধরেছে, সেসব জায়গায় ঠিকাদারের মাধ্যমে কাজ করানো হচ্ছে। দ্বীপ রক্ষায় সরকারের পক্ষ থেকে প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দৈনিক কিশোরগঞ্জ
দৈনিক কিশোরগঞ্জ