ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিব ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’

মঙ্গলবার   ১০ ডিসেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ২৬ ১৪২৬   ১২ রবিউস সানি ১৪৪১

৫০

কিশোরগঞ্জে কৃষক আব্বাস হত্যা: সাতজনের যাবজ্জীবন

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

কিশোরগঞ্জের অষ্টগ্রামের কৃষক আব্বাস আলী হত্যা মামলায় সাতজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে প্রত্যেককে তিন লাখ টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। 

আজ বৃহস্পতিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টায় কিশোরগঞ্জের প্রথম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোহাম্মদ আব্দুর রহিম মামলার ছয় আসামির উপস্থিতিতে এ রায় দেন।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন শেখেরহাটি গ্রামের মংগু মিয়া, দুলু মিয়া, মঞ্জু মিয়া, জংগু মিয়া, এনায়েত, কাজল ও কাকন। আসামিদের মধ্যে মঞ্জু মিয়া পলাতক। আর মামলা চলাকালে মারা যান দুইজন। আসামিরা সবাই পরস্পরের আত্মীয়।

মামলার বিবরণে জানা যায়, কিশোরগঞ্জের অষ্টগ্রাম উপজেলার কাস্তুল ইউনিয়নের শেখেরহাটি গ্রামে ২০০৫ সালের ২৩ জুলাই সকালে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের লোকজন হামলা চালিয়ে হত্যা করে আব্বাস আলীকে। ওই ঘটনায় ওই দিনই নিহত আব্বাসের স্ত্রীর বড় ভাই মিরু মিয়া বাদী হয়ে ৯ জনকে আসামি করে হত্যা মামলা করেন। এরপর অষ্টগ্রাম থানা পুলিশ ২০০৫ সালের ১৯ আগস্ট আদালতে আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী রাখাল চন্দ্র দে বলেন, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের লোকজন হামলা চালিয়ে আব্বাস আলীকে হত্যা করে। ওই ঘটনায় ২০০৫ সালের ১৯ আগস্ট আদালতে আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল হয়। দীর্ঘদিন ধরে মামলাটি চলে আসছিল। আজ সকালে আদালত মামলায় সাতজন আসামিকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড প্রদান করেছেন।

দৈনিক কিশোরগঞ্জ
দৈনিক কিশোরগঞ্জ
এই বিভাগের আরো খবর